বাংলাদেশের ১০টি সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি

এখানে বাংলাদেশের ১০টি সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানির সংক্ষিপ্ত বিবরণ ও তাদের হোস্টিং প্যাকেজসমূহের প্রধান প্রধান বৈশিষ্ঠ্যসমূহ সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে।

প্রফেশনাল মানের ওয়েবসাইট তৈরির প্রথম ও প্রধান প্রয়োজনীয় উপাদান ডোমেইন নেমওয়েব হোস্টিং। আর এই উপকরণগুলো পাবার জন্য একটি ভালো মানের সর্বজন স্বীকৃত ওয়েব হোস্টিং কোম্পানির সার্ভিস গ্রহণ করার প্রয়োজন পড়ে।

তবে, প্রায় প্রতিটি ক্ষেত্রেই ওয়েব ডেভেলপমেন্ট জগতে নতুনদেরকে হোস্টিং কোম্পানি বাছাইয়ে বিভ্রান্তির শিকার হতে হয়। অধিকাংশরাই বুঝতে পারে না, কোথা থেকে এবং কিভাবে ডোমেইন ও হোস্টিং কিনবে।

বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে বলা যায়, বেশিরভাগ মানুষ গুগলসহ বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিনে “Best Web Hosting Company in Bangladesh” অথবা “বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি” লিখে খুঁজতে থাকে। সার্চ লিস্টে প্রথমেই আসে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক হোস্টিং সরবরাহকারী কোম্পানীর নামের তালিকা।

যেগুলো থেকে হোস্টিং কেনার জন্য প্রয়োজন হয় ডুয়েল কারেন্সি ভিসা, মাস্টারকার্ড বা বিভিন্ন অনলাইন মানি ট্রান্সফার সার্ভিস যেমন- PayPal, Payoneer, Skrill, প্রভৃতি। বলা বাহুল্য, এইসব অনলাইন মানি ট্রান্সফার সার্ভিস গ্রহণ করে অনলাইনে কেনাকাটায় উচ্চ হারের প্রসেসিং বা মানি ট্রান্সফার ফি দিতে হয়।

যার ফলে, সাধারণ মানুষ নতুন অবস্থায় জানতেই পারে না যে, নিজের দেশেই কত ভালো ভালো ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি আছে। যেগুলোতে অতি সহজেই ও তুলনামূলক বিচারে অনেকটাই কম খরচে বিকাশ বা রকেটের মতো মোবাইল পেমেন্ট প্রসেসিং সেবার মাধ্যমে পেমেন্ট বা হোস্টিং এর টাকা পরিশোধ করে ওয়েব হোস্টিং একাউন্ট কিনে ওয়েবসাইট প্রকাশ করা যায়।

প্রাসঙ্গিক লেখাটি পড়ে নিন –

আমাদের আজকের এই আর্টিকেলে আমরা জানতে পারব –

বাংলাদেশের ১০টি জনপ্রিয় ও সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি (Top 10 Popular and Best Web Hosting Company in Bangladesh) সম্পর্কে, যাদের কাছ থেকে বাংলাদেশের যে কোন প্রান্ত থেকে স্বল্প খরচে খুব সহজেই ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস কিনতে পারবেন।

বাংলাদেশের ১০টি সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি (Top 10 Best Web Hosting Company in Bangladesh)


(১) ExonHost

বর্তমানে বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি বা প্রতিষ্ঠানের তালিকায় এক্সন হোস্টের অবস্থান প্রথম সারিতে প্রথম বলেই প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞরা বিভিন্ন ওয়েব জার্নালে নিয়মিত অভিমত প্রকাশ করে আসছেন। ExonHost প্রিমিয়াম ওয়েব হোস্টিং, ভার্চুয়াল প্রাইভেট সার্ভার (VPS Hosting), রিসেলার হোস্টিং এর পাশাপাশি উন্নত মানের লিনাক্স ও উইন্ডোজ শেয়ার্ড হোস্টিং সরবরাহ করছে।

এক্সনহোস্ট কর্তৃপক্ষ সবসময় চেষ্টা করেন, স্বল্প মূল্যে সবচেয়ে ভালো মানের সুবিধা ইউজারদের কাছে পৌছে দেয়ার। আপনার ওয়েবসাইটটি যদি অন্য কোনো হোস্টিং কোম্পানীতে হোস্ট করা থাকে এবং যদি আপনি এক্সনহোস্টে সেটি ট্রান্সফার করতে চান, তবে এক্সনহোস্ট সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এ কাজটি করে দেবে। বলা বাহুল্য যে, এ ধরণের কাজ করে দেয়ার বিনিময়ে এক্সপার্টরা দেড় থেকে দুই হাজার টাকাও দাবী করে থাকে!

হোস্টিং খরচঃ মাসিক হিসেবে ৩২৭ টাকা থেকে শুরু।
পেমেন্ট মেথডঃ ব্যাংক, রকেট, বিকাশ, ক্রেডিট ও ডেবিট কার্ড, ওয়ালেটমিক্স এবং পেপাল।

বিস্তারিত জানতে পড়ুন –

বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি – ExonHost Hosting Review 2022

এছাড়া বাংলাদেশের ৩টি সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানীর সাশ্রয়ী মূল্যের ওয়েব হোস্টিং অফার সম্পর্কে জানতে Best Cheap Web Hosting Offers in Bangladesh লেখাটি পড়ে দেখতে পারেন।


(২) XeonBD

২০০৫ সালে যাত্রা শুরু করা এই ওয়েব হোস্টিং কোম্পানিটি নিঃসন্দেহে বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানিদের মধ্যে অন্যতম হিসেবে স্বীকৃতি পাবার যোগ্য। কারণ জিয়নবিডি’র রয়েছে অত্যন্ত শক্তিশালী হোস্টিং সার্ভার, দক্ষ জনবল, সর্বাধুনিক ও সর্বশেষ প্রযুক্তি সমৃদ্ধ নেটওয়ার্ক ইনফ্রাসট্রাকচার, প্রভৃতি।

জিয়নবিডি (XeonBD) প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই অত্যন্ত উচ্চ গতি সম্পন্ন হোস্টিং সার্ভিস সরবরাহ করার প্রতিশ্রুতি দিয়ে আসছে। তাদের বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে লিনাক্স ও উইন্ডোজসহ প্রায় সব ধরণের ওয়েব হোস্টিং প্যাকেজ রয়েছে। এর মধ্যে লিনাক্স ও উইন্ডোজ শেয়ার্ড হোস্টিং, রিসেলার হোস্টিং, ভিপিএস হোস্টিং উল্লেখযোগ্য।

এছাড়া জিয়নবিডি স্বল্প মূল্যে ডেডিকেটেড সার্ভার ও ম্যানেজড ওয়ার্ডপ্রেস হোস্টিং সার্ভিসও প্রদান করছে।

জিয়নবিডি (XeonBD) কেন অন্যান্য ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি থেকে ব্যতিক্রম?

জিয়নবিডি’র রয়েছে বাংলাদেশে তাদের সম্পূর্ণ নিজস্ব মালিকানাধীন অত্যন্ত উচ্চ ক্ষমতাসম্পন্ন ডাটা সেন্টার। এতে জিয়নবিডি শুধু নিজেরাই নয়; বরং এই ডাটা সেন্টারটি বাংলাদেশের অন্যান্য কিছু হোস্টিং কোম্পানিও তাদের গ্রাহকদের ওয়েবসাইট হোস্ট করার কাজে ব্যবহার করছে।

আপনি যদি আপনার ব্লগ বা ওয়েবসাইটের জন্য VPS (Virtual Private Server) হোস্টিং নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকেন তবে জিয়নবিডি আপনাকে সবচাইতে সাশ্রয়ী মূল্যে সর্বোৎকৃষ্ট মানের ভিপিএস হোস্টিং সেবা দিতে সক্ষম।

XeonBD তাদের ভিপিএস প্যাকেজসমূহ অত্যন্ত সাশ্রয়ী মূল্যে SOLO-VPS নামে গ্রাহকদের কাছে বিক্রি করছে। আপনিও ইচ্ছে করলে প্রতি মাসে সর্বনিম্ন ১৬৫০ টাকা পরিশোধ করে তাদের ম্যানেজড ভিপিএস সার্ভিসসমূহের সেবা নিতে পারবেন।

জিয়নবিডি ওয়েব হোস্টিং সার্ভিসের পাশাপাশি ইমেইল মার্কেটিং, এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার, মাইক্রোসফট অফিস ৩৬৫, গুগল জিসুঁইট (G Suite), ডোমেইন রেজিস্ট্রেশন, ফ্রি ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস, ওয়েব সিকিউরিটি সার্ভিসেস, ওয়েব ডেভালপমেন্ট সার্ভিস, প্রভৃতি সেবা প্রদাণ করে থাকে।

ওয়েব হোস্টিং এর ধরণঃ শেয়ার্ড, রিসেলার, ডেডিকেটেড এবং ভিপিএস সার্ভার।
খরচঃ প্রতি মাসে ১৫০ টাকা থেকে শুরু।
পেমেন্ট মেথডঃ বিকাশ, পেপাল, ভিসা, সিটি ব্যাংক, ডিবিবিএল, আইএফাইসি ব্যাংক।

সতর্কতাঃ ভালো মানের ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস, আপটাইম, হোস্টিং স্পীড এবং কাস্টমার সাপোর্ট প্রাপ্তি নিশ্চিত করার জন্য অবশ্যই প্রফেশনাল cPanel ওয়েব হোস্টিং প্যাকেজ (Professional Hosting) অর্থাৎ নূন্যতম Enterprise – Plan 1 নির্বাচন করবেন। ডাইরেক্ট এডমিন প্যানেলযুক্ত সাশ্রয়ী মূল্যের হোস্টিং প্যাকেজ এর মধ্যে কিছু সীমাবদ্ধতা থাকায় ভালো সার্ভিস প্রাপ্তির বিষয়ে আমি অন্তত আশ্বস্ত হতে পারিনি।

(৩) IT Nut Hosting

স্বল্পমূল্যে ডোমেইন ও হোস্টিং সরবরাহকারী বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি সমূহের মধ্যে আইটি নাট হোস্টিং সবচেয়ে বিশ্বস্ত প্রতিষ্ঠানগুলোর একটি। তারা ডোমেইন ও এসএসডি ওয়েব হোস্টিং সরবরাহের পাশাপাশি ক্লাউড সার্ভার নির্ভর ক্লাউড হোস্টিং সার্ভিসও প্রদান করে থাকে।

বাজারে আইটি নাট হোস্টিং এর বেশ সুনাম রয়েছে। অন্য হোস্টিং সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর সাথে পাল্লা দিয়ে দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে আইটি নাট। সবচেয়ে বড় কথা হলো, তাদের হোস্টিং প্যাকেজগুলোর দাম তুলনামূলকভাবে বেশ কম।

ওয়েব হোস্টিংয়ের ধরণঃ লিন্যাক্স সার্ভার, উইন্ডোজ সার্ভার, রিসেলার হোস্টিং, বিজনেস ইমেইল হোস্টিং, ভিপিএস ও ডেডিকেটেড সার্ভার এবং ক্লাউড হোস্টিং।
খরচঃ বছরে প্রতি ২৩.৫৫ ডলার বা বাংলাদেশী টাকায় ২০০০ টাকা থেকে শুরু।
পেমেন্ট মেথডঃ বিকাশ, স্কিল, ব্যাংক ডিপোজিট, পেপাল ও যেকোন ধরণের ডুয়েল কারেন্সি কার্ড।

(৪) EbnHost

ইবিএন হোস্ট বাংলাদেশের সবচেয়ে পুরাতন এবং বিশ্বস্ত হোস্টিং সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর একটি। ২০০৮ সালে জন্ম নেয়া এই প্রতিষ্ঠানটি অন্য যেকোনো বাংলাদেশী হোস্টিং সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানের তুলনার ফিচারের দিক থেকে অনেক এগিয়ে রয়েছে।

তাদের সার্ভারের স্পীড অত্যন্ত দ্রুত গতিসম্পন্ন। তারা তাদের সর্বনিম্ন বাজেটের হোস্টিং প্যাকেজেও Turbo ৫০% অতিরিক্ত স্পীডের গ্যারান্টি দিয়ে আসছে।

EbnHost কাস্টমার সার্ভিস অনেক ভালো। তাদের মোবাইল নাম্বারে দিনের যে কোনো সময় কল করা হলে কিংবা সোশ্যাল মিডিয়াতে ম্যাসেজের মাধ্যমে তাৎক্ষণিকভাবে সাহায্য পাওয়া যায়। তাদের প্যাকেজগুলোর দামও তুলনামূলকভাবে বেশ কম।

এক নজরে ইবিএন হোস্ট (EbnHost) এর ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস সমূহের সেবা সমূহ –

বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি EbnHost এর সার্ভিস
ইবিএন হোস্টিং (EbnHost) এর ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস সংশ্লিষ্ট সেবা সমূহ

ওয়েব হোস্টিং এর ধরণঃ শেয়ার্ড হোস্টিং, রিসেলার হোস্টিং, সেমি রিসেলার হোস্টিং এবং ডেডিকেটেড সার্ভার।
খরচঃ বছরান্তে ১২৫০ টাকা থেকে শুরু।
পেমেন্ট মেথডঃ বিকাশ, রকেট, ভিসা, পেপাল, মাস্টার কার্ডসহ ইত্যাদি।

(৫) ADN Servers

এডিএন সার্ভার্স বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে অন্যান্য হোস্টিং কোম্পানি থেকে কিছুটা নবীন হলেও অত্যন্ত দ্রুত বর্ধনশীল একটি ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি। বর্তমানে বাংলাদেশের গণ্ডি পেরিয়ে ১০০টিরও বেশি দেশে তাদের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে।

মূলত স্বল্প মূল্যে ওয়েব হোস্টিং সেবা প্রদানের জন্য এডিএন সার্ভার্স বেশ বিখ্যাত। তাদের সরবরাহকৃত ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস এর সব চাইতে আকর্ষণীয় ফিচার হচ্ছে-

ADN Servers প্রতিটি ওয়েব হোস্টিং একাউন্টের সাথে আনলিমিটেড ব্যান্ডউইথ প্রদাণ করছে।

ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস সরবরাহের পাশাপাশি এরা এসএমএস মার্কেটিং, ইমেইল মার্কেটিং ও ওয়েব ডিজাইন ও ডেভালপমেন্টসহ বিভিন্ন ওয়েব রিলেটেড সার্ভিস দিয়ে আসছে।

ব্যাবহারকারীদের কাছে বিশ্বস্ত থাকার জন্য তারা ২৪ ঘন্টা সবসময় অনলাইন সাপোর্ট এবং মানিব্যাক গ্যারান্টি দিয়ে থাকে। এখানে বলে রাখা প্রয়োজন; এডিএন সার্ভার্স অত্যন্ত দ্রুত বিক্রয় পরবর্তী সেবা ও অনলাইন সাপোর্ট প্রদান করে থাকে।

ওয়েব হোস্টিং এর ধরণঃ শেয়ার্ড ওয়েব হোস্টিং, রিসেলার হোস্টিং, কর্পোরেট হোস্টিং, ভিপিএস সার্ভার, ম্যানেজড ওয়ার্ডপ্রেস হোস্টিং, এবং ডেডিকেটেড সার্ভার। এছাড়া এডিএন সার্ভার্স তাদের গ্রাহকদের স্বল্প মূল্যে ম্যানেজড অ্যামাজন ওয়েব সার্ভিসও প্রদান করে থাকে।
খরচঃ বছরে ৮০০ টাকার প্যাকেজ থেকে শুরু।
পেমেন্ট মেথডঃ বিকাশ, রকেট ব্যাংক এবং ডেবিট ও ক্রেডিট কার্ড।

(৬) WebHostBD

ওয়েব হোস্টিং বিডি ডোমেইন ও হোস্টিং সেবা প্রদানকারী একটি বাংলাদেশী প্রতিষ্ঠান। তাদের যাত্রা শুরু হয়েছিল মাত্র ৮ বছর আগে। এর মধ্যেই সুখ্যাতি ও সফলতার স্বাদ তারা বেশ ভালোভাবেই পেয়েছে।

তাদের অসাধারণ কাস্টমার সাপোর্টের প্রশংসা সব ব্যবহারকারীর মুখেই শোনা যায়। হোস্টিং ডোমেইন সম্পর্কিত যেকোনো সমস্যা তারা খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে সমাধান করে দেয়। তারা শেয়ার্ড হোস্টিং এর পাশাপাশি রিসেলার, ভিপিএস এবং ডেডিকেটেড সার্ভারের সুবিধা দিয়ে থাকে।

খরচঃ বছরান্তে ১০০০ টাকা থেকে শুরু।
পেমেন্ট মেথডঃ বিকাশ, রকেট, নগদ, ডিবিবিএল, সিটি ব্যাংক, ন্যাশনাল ব্যাংক এবং নেক্সাসপে।

(৭) HostMight

হোস্টমাইট একটি মানসম্পন্ন ডোমেইন ও হোস্টিং সরবরাহকারী বাংলাদেশী প্রতিষ্ঠান। ২০১০ এর দিকে প্রতিষ্ঠা লাভ করা এই কোম্পানিটি সবচেয়ে দ্রুত অগ্রগতিতে সাফল্য লাভ করা প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে শীর্ষ অবস্থানে রয়েছে।

হোস্ট মাইটের ডেটা সেন্টার আমেরিকার ফ্লোরিডায় অবস্থিত। তারা শেয়ার্ড ও রিসেলার ওয়েব হোস্টিং এর পাশাপাশি ম্যানেজড ভিপিএস হোস্টিং সরবরাহ করে আসছে।

খরচঃ সর্বনিম্ন দামের প্যাকেজের মূল্য বছরে ১৪৯৯ টাকা।
পেমেন্ট মেথডঃ বিকাশ, রকেট, ডিবিবিএল, নেক্সাস, মাস্টারকার্ড এবং ভিসা।

(৮) Dhaka Web Host

২০১১ সালে প্রতিষ্ঠা পাওয়া ঢাকা ওয়েব হোস্ট লিমিটেড একটি প্রাইভেট ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি। এ পর্যন্ত তারা ২৫০০ এর বেশি বানিজ্যিক ও ব্যক্তিগত ওয়েবসাইটে হোস্টিং সেবা প্রদান করেছে। তারা বিশ্ব বিখ্যাত ডাটা সেন্টার লিকুয়িড ওয়েব থেকে ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস সরবরাহ করছে।

ওয়েব হোস্টিং এর ধরণঃ ভিপিএস, শেয়ার্ড, রিসেলার এবং ডেডিকেটেড।
খরচঃ বছরে ৬০০ টাকা থেকে শুরু।
পেমেন্ট মেথডঃ বিকাশ, রকেট, ক্যাশ, ব্যাংক, ভিসা, মাস্টার কার্ড।

(৯) CentrioHost

কোয়ালিটি এবং কাস্টমারের সুবিধা অসুবিধার দিকে ফোকাস রাখা সেন্ট্রিওহোস্ট একটি ক্লাউড হোস্টিং সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান। তারা সব সময়ই সর্বোচ্চ আপটাইম নিশ্চিত করে আসছে।

২০০৭ সাল থেকে শুরু করে আজ পর্যন্ত সেন্ট্রিওহোস্ট ওয়েবসাইটের মালিকদের সাথে আন্তরিক সম্পর্কে স্থাপনের চেষ্টা করে আসছে। ওয়েবসাইটের মান বৃদ্ধির জন্য যেকোনো পরামর্শ দেয়ার ক্ষেত্রে তারা অনবদ্য। ক্লায়েন্টের ওয়েবসাইটটি হোক ব্লগ বা ই কমার্স সাইট কিংবা ব্যক্তিগত বা বানিজ্যিক, যেকোনো সমস্যায় তারা সবাইকে সমান গুরুত্ব দিয়ে থাকে।

ওয়েব হোস্টিং এর ধরণঃ শেয়ার্ড, রিসেলার এবং ভিপিএস ও ডেডিকেটেড সার্ভার।
খরচঃ বছরে ১৪.৯৯ ডলার বা বাংলাদেশী টাকায় প্রায় সাড়ে ১২০০ টাকা।
পেমেন্ট মেথডঃ পেপাল, স্ক্রিল, ব্যাংক ট্রান্সফার, ভিসা এবং মাস্টারকার্ড।

(১০) Hostever

হোস্টএভার (প্রাক্তন কোড ফর হোস্ট) সুলভ মুল্যে অত্যন্ত দ্রুতগতির ওয়েব হোস্টিং সেবা প্রদানের জন্য বিখ্যাত। তাদের ডাটা সেন্টার আমেরিকা’র ডমিনক, ফ্লোরিডায় অবস্থিত।

এছাড়া হোস্টএভার বাংলাদেশের জিয়নবিডি’র ডাটাসেন্টারও ব্যবহার করছে। প্রতিযোগীতামূলক মূল্যে প্রতিটি হোস্টিং একাউন্ট এর জন্য তারা ৯৯.৯৯৯% আপটাইমের গ্যারান্টি দিয়ে থাকে।

ওয়েব হোস্টিং এর ধরণঃ লিনাক্স ও উইন্ডোস শেয়ার্ড, রিসেলার, ভিপিএস ও ডেডিকেটেড সার্ভার।
খরচঃ সম্পূর্ণ ১ বছরের জন্য ১৫০০ টাকা থেকে শুরু!
পেমেন্ট মেথডঃ ভিসা, মাস্টারকার্ড এবং পেপাল।

বাংলাদেশের কোন ওয়েব হোস্টিং কোম্পানিটি আপনার জন্য সেরা হতে পারে?

এখানে ১০ টি বাংলাদেশী ওয়েব হোস্টিং সার্ভিস প্রদাণকারী প্রতিষ্ঠানের নাম উল্লেখ করা হয়েছে। প্রতিটি হোস্টিং কোম্পানীরই বেশ ভালো সুনাম রয়েছে। কিন্তু আপনাকে এগুলোর মধ্য থেকে যে কানো একটা বাছাই করতে হবে।

এক্ষেত্রে আপনি কি করবেন?

আমার মতে, ExonHost মানের দিক থেকে বর্তমান সময়ে তুলনামূলকভাবে একটু বেশি এগিয়ে রয়েছে। এখান থেকে হোস্টিং নিলে সবচেয়ে ভালো ফল পাওয়া যাবে বলে আমি আশাবাদী।

কেন ExonHost বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি?

কেন ExonHost বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানী?
বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি ExonHost এর সেবা সমূহ

কিন্তু, এক্সনহোস্ট এর প্যাকেজগুলো বেশ দামী হওয়ায় নতুনরা ওদিকে যেতে চায় না। সেক্ষেত্রে আমি বলব XeonBD -ই আপনার জন্য সেরা পছন্দ হতে পারে। কারণ, তাদের সার্ভার যেমন অনেক বেশি দ্রুত গতিসম্পন্ন এবং অন্যদিকে দামেও তুলনামূলকভাবে সাশ্রয়ী।

আমি নিজেও আমার ব্লগিং ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে জিয়নবিডি হোস্টিং (XeonBD) ব্যবহার করেছি। যতবারই সমস্যার সম্মুখীন হতাম; তাদের হেল্প লাইনে কল দিয়ে সমস্যার কথা জানাতাম। তারাও তাদের সর্বোচ্চটুকু দিয়ে সাহায্য করতো।

তবে XeonBD এর একটা খারাপ দিক হলো, অনেক সময়ই ছুটির দিনে ইমেইল সাপোর্ট পাওয়া যায় না৷ তবে, অত্যন্ত শক্তিশালী ও সর্বশেষ প্রযুক্তির সমাহারে সমৃদ্ধ ওয়েব হোস্টিং সার্ভারে সাধারণত খুব একটা সমস্যা দেখা দেয় না। যার কারণে এই ছোট্ট সমস্যাটিও অনেকক্ষেত্রে বিবেচনায় আনার প্রয়োজনই বোধ হয় না।

শেষকথা

বাংলাদেশের লোকাল হোস্টিং সেবা ব্যবহার করতে বলার মূল কারণ হলো, এখানে পেমেন্ট প্রক্রিয়া অনেক সহজ। এছাড়াও, অনেকের ইংরেজীতে কথা বলায় সমস্যা থাকে। সেক্ষেত্রে, বাংলাদেশের সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি সমূহ থেকে হোস্টিং নেয়াই বুদ্ধিমানের কাজ হবে। কারণ, সরাসরি কল করে বাংলাতে সুন্দরভাবে গুছিয়ে তাদেরকে সমস্যার কথা জানানো যায়।

তবে, আপনার ইংরেজি ভাষায় মোটামুটি ধারণা অর্থাৎ কথা বলা বা লিখতে পাড়ার দক্ষতা থাকলে এবং ভিসা বা মাস্টারকার্ড বা এই জাতীয় কোনো অনলাইন পেমেন্ট প্রসেসিং পদ্ধতি ব্যবহার করার সক্ষমতা থাকলে আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে সর্বজন স্বকৃত সেরা মানের হোস্টিং কোম্পানি NameCheap থেকেই হোস্টিং একাউন্ট কিনে নিতে পারেন।

প্রয়োজন মনে হলে পড়ে নিতে পারেন –

1 thought on “বাংলাদেশের ১০টি সেরা ওয়েব হোস্টিং কোম্পানি”

Leave a Comment